ব্লগিং শুরু করার ৮টি টিপস – প্যাসিভ ইনকাম আইডিয়া

8-tips-to-blogging
Sending
User Review
5 (5 votes)

আমরা অনেক সময়ই শুনে থাকি ব্লগিং করে বেশ ভালো মানের ইনকাম করা যায়। আপনি হয়ত বেশ কয়েকবার চেষ্টাও করেছেন, কিন্তু সফল হতে পারেন নি।

যেটা করতে ভালো লাগে না সেটা করতে করতে আপনি যদি ক্লান্ত হয়ে থাকেন, তাহলে আপনি ব্লগিং করে প্যাসিভ ইনকাম করতে পারেন। তবে অবশ্যই ব্লগিংয়ের প্রতি আপনার প্যাশন থাকতে হবে।

আমার আজকের আর্টিকেলে আপনাদের স্বাগতম জানাচ্ছি। আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করব, প্যাসিভ ইনকামে সফল হওয়ার জন্য কীভাবে ব্লগ শুরু করবেন।

 

চলুন শুরু করি…

 

টিপ: আপনাকে প্রথমেই ভালো একটি Niche পছন্দ করতে হবে। Niche-টি অবশ্যই আপনার পছন্দের/সাচ্ছন্দের বিষয়ে হতে হবে। অন্যথায় আপনি সফল হতে পারবেন না।

ব্লগিংয়ে আপনি প্রথম দিন থেকেই প্যাসিভ ইনকাম করতে পারবেন না, আপনার ইনকাম শুরু হতে ৬ মাস থেকে ১ বছর লাগবে। সুতরাং, আপনাকে Niche-এর ওপর প্যাশনেট হতে হবে।

 

টিপ : এরপর ওয়েব হোস্টিংয়ে সাইন-আপ করুন। দ্রুত লোড হয় এরকম ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস গ্রহণ করুন। এই কাজটিই অনেক ব্লগাররা এড়িয়ে যায়।

আপনি ব্লুহোস্ট থেকে হোস্টিং নিতে পারেন। কেননা, ব্লুহোস্টে আপনি এক ক্লিক করেই ওয়ার্ডপ্রেস ইনস্টল করতে পারবেন।

 

টিপ : কন্টেন্ট লেখা শুরু করতে পারেন। নিজেই কন্টেন্ট লিখলে, আপনাকে আর কন্টেন্ট রাইটার হায়ার করতে হবে না। তবে অবশ্যই মাথায় রাখবেন মানষের মধ্যে চাহিদা আছে এরকম বিষয়েই কন্টেন্ট লিখবেন।

কন্টেন্টের একটি আকর্ষণীয় টাইটেল থাকা বাঞ্ছনীয়। কেননা প্রতি দশজনে আট জনই টাইটেল ভাল না লাগলে সম্পুর্ণ কন্টেন্ট পড়ে না।

 

টিপ : আর্টিকেল লেখা শুরু করার আগে আউটলাইন তৈরি করুন। ছোটবেলায় রচনা লেখার কথা আপনার নিশ্চয় মনে আছে। ভূমিকা, বর্ণনা, উপসংহার কোথায় কী তথ্য বসবে তা যেমন আগে থেকেই ভেবে রাখতেন, ঠিক তেমনিভাবে আপনার আর্টিকেলের জন্য সুন্দর একটি আউটলাইন তৈরি করুন।

 

আরও পড়ুনব্লগিংয়ে সফল হবার উপায়

 

টিপ : অন্য ব্লগের সাথে লিংক করা। আপনি যখন কন্টেন্টে কোন উক্তি ব্যবহার করবেন, তখন সেগুলোকে সোর্সের সাথে লিংক করাতে হবে। এতে পাঠকদের কাছে আপনার গ্রহণযোগ্যতা এবং বিশ্বাসযোগ্যতা দুটোই বাড়বে।

 

টিপ : প্রতি সপ্তাহে ১-৩ বার ব্লগ পাবলিশ করার চেষ্টা করুন। ব্লগিংয়ে সাফল্য পেতে ধারাবাহিকতা বজায় রাখা খুবই জরুরী। অন্যথায় আপনি ট্রাফিক বাড়বে না। আপনার হাতে যদি সময় থাকে, তাহলে সপ্তাহে ৩ বার ব্লগ পোস্ট করার চেষ্টা করুন।

 

টিপ : আপনি যদি সফল ব্লগার হতে চান যে কিনা অনলাইনে খুব ভালো ইনকাম করে, তাহলে আপনাকে জানতে হবে কীভাবে পাঠকদের আপনার ব্লগে বার বার ফিরিয়ে আনতে হয়।

Hellobar এবং Subscriber এই দুটি টুল দিয়ে নিয়মিতভাবে পাঠকদের আপনার ব্লগে ফিরিয়ে আনতে পারেন।

 

টিপ : আপনার সাইটে যদি নিয়মিতভাবে ট্রাফিক আসে, তাহলে আপনার ব্লগসাইটটি Monetize করুন। আপনি Google AdSense, Clickbank ব্যবহার করতে পারেন। Google AdSense থেকে এড ক্লিকের মাধ্যমে আর Clickbank থেকে এফিলিয়েট মার্কেটিং করে আয় করতে পারেন।

 

আশা করি আর্টিকেলটি আপনার ব্লগিং ক্যারিয়ার গড়তে সামান্য হলেও সাহায্য করবে। আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না। অবশ্যই কমেন্ট বক্সে আপনার মতামত জানাবেন। ধন্যবাদ সবাইকে।

Facebook Comments

Related posts

Leave a Comment