কীভাবে একটি সুন্দর ল্যান্ডিং পেইজ তৈরি করবেন। (আপনার ওয়েবসাইট আরও আকর্ষণীয় করুন)

Sending
User Review
0 (0 votes)

সাইটে ট্রাফিক আনছেন, এমনকি ট্রাফিক আনার জন্য টাকাও খরচ করছেন। এখন এই ভিজিটর যদি কাস্টমারে কনভার্ট না হয়, সেক্ষেত্রে কী করবেন? বেশ, আপনি যদি নিচের ৫ স্টেপ অনুসরণ না করেন, তাহলে আপনার এই ভিজিটর এনে কোন লাভই হবে না। আজ আপনাদের শেয়ার করব কীভাবে একটি সুন্দর ল্যান্ডিং পেইজ তৈরি করবেন এবং তা ব্যবহার করে ৪০% এরও বেশি কাস্টমার কনভার্ট করবেন।

আপনি ভাবছেন ৪০% কনভার্সন রেট!!! তাও আবার ল্যান্ডিং পেইজ থেকে!!! অসম্ভব মনে হচ্ছে, তাই না? অবশ্যই সম্ভব। আপনি যদি ১০০ ডলারে কোন পণ্য বিক্রয় করতে চান, তাহলে ৪০% রেট পাবেন না। কিন্তু আপনি যদি লিড সংগ্রহ দিয়ে শুরু করেন। তা হতে পারে নাম এবং ইমেইল এড্রেস সংগ্রহ, তাহলে আপনি কনভার্সন রেট বাড়াতে পারেন। এমনকি আপনি পণ্যের বিক্রয়ও বাড়াতে নিচের স্টেপগুলো অনুসরণ করতে পারেন।

টিপ ১: “Click Funnel” বা “InstaPage” এর মত টুল ব্যবহার করুন। “Click Funnel” বা “InstaPage” এই টুলগুলো তাদের সিস্টেমেই ল্যান্ডিং পেইজ তৈরি করে। এই টুলগুলো ডেটা ব্যবহার করে। এদর শত শত হাজার কাস্টমার আছে। এই কাস্টমারদের ডেটা এবং কনভার্সন রেট বিশ্লেষণ করে আপনানাকে ল্যান্ডিং পেইজ তৈরি করতে সাহায্য করবে।

টিপ ২: ইউনিক “Value Proposition” ব্যবহার করা। সচরাচর সবাই যেভাবে করে যে, আপনার নাম এবং ইমেইল এড্রেস দিন, আমি আপনাকে ফ্রি পিডিএফ দিব বা ৭ দিন পর পর আপডেট জানাবো। এরকম সস্তা “Value Proposition” এখন খুব একটা চলে না। ইএ কাজটাই একটু ভিন্ন উপায়ে করতে হবে। যেমন: আপনি যদি বলেন বিনামূল্যে কোন কোর্স দিবেন বা ভালো গাইডলাইন দিবেন, তাহলে আপনি সহজেই কনভার্সন রেট বাড়বে।

সহজ কথায়, আপনাকে “Value Proposition” এর মাধ্যমে ভিজিটররা কী চায় বা তাদের সমস্যার সমাধান দিতে হবে। তাহলেই তারা আপনার বেশি বেশি পণ্য কিনবে।

টিপ ৩: “Keep It Simple”. অনেকেই ল্যান্ডিং পেইজের ভাষা কঠিন করে ফেলে। আবার অনেকে অপ্রয়োজনীয় বিষয় রাখে। এর কোন মানেই হয় না। অতিরিক্ত বিষয় বাদ দিয়ে দেন। উদাহরণ স্বরূপ, আপনার ল্যান্ডিং পেইজের ৫টি “Field Record” এর মধ্যে যদি ৩টি প্রয়োজনীয় হয়, তাহলে অতিরিক্তগুলো বাদ দিয়ে দেয়াই ভালো। এতে আপনার ল্যান্ডিং পেইজটির মূল বিষয়বস্তু ঠিক থাকবে।

আমি ল্যান্ডিং পেইজকে ছোট রাখতে বলছি না, বরং মূল বিষয়বস্তু অনুযায়ী দীর্ঘায়ীত করুন। ফলে কনভার্সন রেট বাড়বে।

টিপ ৪: Social Proof বাড়ানো। আপনি টেস্টিমোনিয়াল, প্রোডাক্ট রিভিউ ছাড়াও অনেকভাবেই Social Proof বাড়াতে পারেন। ভিজিটরদের সাথে কমিউনিকেশন যত বাড়াবেন, আপনার গ্রহণ যোগ্যতাও তত বাড়বে।

টিপ ৫: খুব ভলো একটি ভিডিও যুক্ত করুন। এখন অধিকাংশ মানুষই আর্টিকেল পড়তে পছন্দ করে না। শুধু ছবি দিয়েও সব কিছু ব্যাখ্যা করা যায় না। ভিডিওতে আপনার পণ্য বা সেবা সম্পর্কে প্রশ্ন-উত্তর বিস্তারিত এবং যুক্তিযুক্তভাবে দিবেন। তবে অবশ্যই ৩ মিনিটের কম সময়ে। ১ মিনিটের হলে আরও ভালো হয়। ভিডিও লংটার্ম এবং কোয়ালিটিফুল ক্লাইন্ট পেতে খুবই কার্যকর।

এই টিপগুলো ব্যবহার করলে আপনার ব্যবসা বা পণ্যের ওপর ভিত্তি করে ৪০% পর্যন্ত কনভার্সন রেট বাড়ানো সম্ভব।

Facebook Comments

Related posts

Leave a Comment